বিশ্বজুড়ে করোনায় মৃত্যু ছাড়াল ৩৫ লাখ ৫৬ হাজার

8

দেশ জার্নাল ডেস্ক :
বিশ্বব্যাপী মহামারি করোনাভাইরাসে মৃত্যু ও শনাক্ত কমেছে। বেড়েছে করোনা থেকে সুস্থতার হার। গত ২৪ ঘণ্টায় এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ৮ হাজার ১২৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৪ লাখ ১১ হাজার ৩৯৫ জন। আর সুস্থ হয়েছেন ৫ লাখ ৯৩ হাজার ৯৪১ জন রোগী।

সোমবার (৩১ মে) সকাল ৮টায় আন্তর্জাতিক পরিসংখ্যানভিত্তিক ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটার থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

এর আগে গতকাল রোববার (৩০) ২৪ ঘণ্টায় ১১ হাজার ৭৬ জনের মৃত্যু হয়। একই সময়ে নতুন শনাক্ত হয় ৫ লাখ ১ হাজার ৪১২ জন রোগী। সেই হিসেবে গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে মৃত্যু কমেছে প্রায় তিন হাজার। আর শনাক্ত কমেছে ১ লাখেরও বেশি।

ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্যানুযায়ী, বিশ্বব্যাপী এখন পর্যন্ত করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে মোট ১৭ কোটি ১০ লাখ ২৯ হাজার ৬১৭ জন। এরমধ্যে মারা গেছেন ৩৫ লাখ ৫৬ হাজার ৬১৭ জন। আর এখন পর্যন্ত করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন ১৫ কোটি ৩১ লাখ ১৮ হাজার ৭৪৩ জন।

বিশ্বে করোনায় ক্ষতিগ্রস্ত দেশের তালিকায় সবার ওপরে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন ৩ কোটি ৪০ লাখ ৪৩ হাজার ৬৮ জন। এরমধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৬ লাখ ৯ হাজার ৫৪৪ জনের। আর সুস্থ হয়েছেন ২ কোটি ৭৮ লাখ ৪০ হাজার ৮৮৪ জন।

তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে ভারত। দেশটিতে এখন পর্যন্ত ২ কোটি ৮০ লাখ ৪৬ হাজার ৯৫৭ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। মৃত্যু হয়েছে ৩ লাখ ২৯ হাজার ১২৭ জনের। আর সুস্থ হয়েছেন ২ কোটি ৫৬ লাখ ৬৮ হাজার ৫২৯ জন।

তৃতীয় স্থানে রয়েছে ব্রাজিল। লাতিন আমেরিকার দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন ১ কোটি ৬৫ লাখ ১৫ হাজার ১২০ জন। মৃত্যু হয়েছে ৪ লাখ ৬২ হাজার ৯২ জনের। আর সুস্থ হয়েছেন ১ কোটি ৪৯ লাখ ১২ হাজার ৭৪৪ জন।

তালিকায় চতুর্থ স্থানে রয়েছে ফ্রান্স, পঞ্চম স্থানে তুরস্ক, ষষ্ঠ স্থানে রাশিয়া, সপ্তম যুক্তরাজ্য, অষ্টম ইতালি, নবম আর্জেন্টিনা এবং দশম জার্মানি।

সংক্রমণ ও মৃত্যুর তালিকায় বাংলাদেশের অবস্থান ৩৩তম। দেশে এখন পর্যন্ত ৭ লাখ ৯৮ হাজার ৮৩০ জন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছেন। এরমধ্যে মারা গেছেন ১২ হাজার ৫৮৩ জন। আর সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৭ লাখ ৩৮ হাজার ৮০৫ জন।

২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। দেশটিতে করোনায় প্রথম রোগীর মৃত্যু হয় ২০২০ সালের ৯ জানুয়ারি। ওই বছরের ১৩ জানুয়ারি চীনের বাইরে প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হয় থাইল্যান্ডে। পরে ধীরে ধীরে বিভিন্ন দেশে ছড়িয়ে পড়ে।

করোনা প্রাদুর্ভাবের পরিপ্রেক্ষিতে গত বছরের ৩০ জানুয়ারি বৈশ্বিক স্বাস্থ্য জরুরি অবস্থা ঘোষণা করে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)। গত বছরের ২ ফেব্রুয়ারি চীনের বাইরে করোনায় প্রথম কোনো রোগীর মৃত্যুর ঘটনা ঘটে ফিলিপাইনে। ওই বছরেরই ১১ মার্চ করোনাকে বৈশ্বিক মহামারি ঘোষণা করে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।

দেশ যুগান্তর/আরজে

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here